1. rajoirnews@gmail.com : ABDUL AZIZ : ABDUL AZIZ
  2. gopalganjbarta@gmail.com : ashik Rahman : ashik Rahman
  3. news.coxsbazarvoice@gmail.com : ABDUL AZIZ : ABDUL AZIZ
  4. jmitsolutionbd@gmail.com : jmmasud :
সাংবাদিক মনতোষ সপরিবারে করোনায় আক্রান্ত - Coxsbazar Voice
মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০, ০৩:৫৫ পূর্বাহ্ন
দৃষ্টি দিন:
সম্মানিত পাঠক, আপনাদের স্বাগত জানাচ্ছি। প্রতিমুহূর্তের সংবাদ জানতে ভিজিট করুন -www.coxsbazarvoice.com, আর নতুন নতুন ভিডিও পেতে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল Cox's Bazar Voice. ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে শেয়ার করুন এবং কমেন্ট করুন। ধন্যবাদ।
শিরোনাম :
হোয়ানকে মা-ছেলে নিখোঁজ, অাকলিমার ম্যাসেজে তোলপাড়, থানায় জিডি সাংবাদিক সৈয়দুল কাদের শাহ মজিদিয়া বালিকা মাদ্রাসার পরিচালনা কমিটির সভাপতি মনোনীত সব সত্য বলব,তবে সময় চাইলেন শিপ্রা ও সিফাত সিটি, পৌর, ইউনিয়ন পরিষদের নাম পরিবর্তন:শিক্ষাগত যোগ্যতা নির্ধারণের বিষয় ইসির নয় সতর্ক থাকার পাশাপাশি আগাম প্রস্তুতি নেওয়ার নির্দেশ-প্রধানমন্ত্রীর বিদেশ যেতে চান খালেদা জিয়া, হাঁটুর চিকিৎসার জন্য সিনহা হত্যা: তদন্ত কমিটির সময় আরও সাত কর্মদিবস বাড়ানো হয়েছে ঘটনার ‘স্পর্শকাতর তথ্য’ দিয়েছেন শিপ্রা: র‍্যাব ‘সিনহা হত্যাকান্ডে জড়িত নই, আমার বিরুদ্ধে য়ড়যন্ত্র’-ইলিয়াস কোবরা সরকারের নির্দেশনা: মাস্ক পরা অভ্যাসে পরিণত করতে নামবে ভ্রাম্যমাণ আদালত

সাংবাদিক মনতোষ সপরিবারে করোনায় আক্রান্ত

  • প্রকাশিত : বুধবার, ১৭ জুন, ২০২০, ৭.০০ পিএম
  • ৬৫ জন সংবাদটি পড়েছেন।

ইমাম খাইর:

কক্সবাজারের সাংবাদিক মনতোষ বেদজ্ঞ সপরিবারে করুণায় আক্রান্ত হয়েছে। বুধবার (১৬ জুন) কক্সবাজার মেডিকেল কলেজের ল্যাবের রিপোর্টে তাদের করোনা ধরা পড়ে। সাংবাদিক মনতোষ বেদজ্ঞ নিজেই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, অনেক সতর্ক এবং সচেতন থাকার পরও আমার করোনা নমুনা পরীক্ষার ফল ‘পজিটিভ’ এলো। আমার স্ত্রী, সাত বছর বয়সী কন্যার রিপোর্টও ‘পজিটিভ’।

গত ১২ জুন রাতে আমার জ্বর আসে। সাথে কিছুটা কোমর ব্যথা। পরদিন সকালে আমি কক্সবাজার সদর হাসপাতালের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক বিধান পালের পরামর্শে কিছু ওষুষ সেবন করি। সেই দিন থেকে আমার শরীরে জ্বর বা অন্য কোন উপসর্গ দেখা দেয়নি। আমি সুস্থ আছি। এর আগে আমার সাত বছর বয়সী ও ৯ মাস বয়সী দুই কন্যার কিছুটা জ্বর এসেছিল। তারাও বর্তমানে সুস্থ আছে। কোন উপসর্গ নেই।

মনতোষ বেদজ্ঞ বলেন, কিছুটা উদ্বেগ আছে আমার বৃদ্ধা মাকে নিয়ে। মঙ্গলবার (১৬ জুন) রাত থেকে হঠাৎ করেই তিনি জ্বরে ভুগছেন। জ্বর উঠানামা করছে। সর্দির ভাবও আছে। ওষুধ চলছে।

গত ১৪ জুন আমি কক্সবাজার পৌরসভার স্বেচ্ছাসেবক টিমকে বাসায় ডেকে নমুনা দিই। গতকাল বুধবার রাত ১১ টার দিকে এক জ্যেষ্ঠ সহকর্মীর মাধ্যমে জানতে পারি করোনা ‘পজিটিভ’ তালিকায় আমাদের নামও যুক্ত আছে। পরে তাঁর কাছ থেকে তালিকাটাও সংগ্রহ করি। তবে এখনও পযন্ত জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে ফোন করে বা কোন ক্ষুদে বার্তা পাঠিয়ে আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি আমাকে জানানো হয়নি।

তিনি বলেন, নমুনা দেওয়ার পর থেকে আমি এবং আমার পরিবার সম্পূর্ণভাবে নি:সঙ্গ আছি। কারও সংস্পর্শে যাইনি। আজ একজনের সহায়তায় আরও কিছু ওষুধ সংগ্রহ করেছি। তিনি গেটের বাইরে এসে তা পৌঁছে দিয়ে গেছেন। এভাবে সামনের সম্ভাব্য কঠিন দিনগুলো আমি এবং আমার পরিবার নি:সঙ্গ থেকেই কাটাবো।

গত প্রায় আড়াই মাসে খুব জরুরী প্রয়োজন ছাড়া আমি ঘর থেকেই বের হইনি। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলেছি ঘরে-বাইরে। অন্যের সংস্পর্শ এড়িয়ে চলার চেষ্টা করেছি। অফিসের কাজও চলছে ঘরে বসে যতটুকু সম্ভব।

মনতোষ বেদজ্ঞ সবাইকে অনুরোধ করে বলেন, আড়াই মাসে সব মিলিয়ে ১০ বারও ঘর থেকে বের না হয়ে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমি যদি আক্রান্ত হতে পারি আপনিও কোনওভাবে এ ঝুঁকির বাইরে নন। প্লিজ, ঘরে থাকুন, নিজে নিরাপদ থাকুন, স্বজনদেরও নিরাপদের রাখুন।

ভয়েস/আআ

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2020
Design & Developed by : JM IT SOLUTION